ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে অস্থায়ী শহীদ মিনারে ভারত- বাংলাদেশের শ্রদ্ধা নিবেদন

20

আঃজলিল,(শার্শা যশোর)প্রতিনিধিঃ– আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে এবার স্বল্প পরিসরে যশোরের বেনাপোল- পেট্রাপোল সীমান্তের শূণ্য রেখায় কাঠ, বাঁশের তৈরী অস্থায়ী শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন দুই দেশের রাজনৈতিক নেতা, কর্মী ও প্রশাসনিক কর্মকর্তারা। বিধি নিষেধের কারনে সাধারণ ভাষা প্রেমীদের সুযোগ ছিলনা শূন্য রেখায় প্রবেশের। দূরে দাঁড়িয়ে তারা উৎসব অনুভব করেন।
শার্শা উপজেলা আওয়ামীলীগের আয়োজনে ২১ ফ্রেব্রুয়ারী সকাল ১১ টায় বাংলাদেশের পক্ষে যশোর-১ আসনের সংসদ শেখ আফিল উদ্দীনের নেতৃত্বে ২৫ থেকে ৩০ জন শুণ্য রেখায় শহীদ মিনারে পুষ্প অর্পন করেন।
অন্যদিকে, ভারতের পক্ষে শ্রদ্ধা জানান ভারতের ২৪ পরগনা বাগদা বিধান সভার বিধায়ক বিশ্বজিত দাসের নেতৃত্বে ২০ জন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব। এসময় সীমান্তে বিভিন্ন সংস্থার নিরাপত্তা জোরদার করা হয়।জানা যায়, ২০০৫ সালে প্রথম বেনাপোল- পেট্রাপোল সীমান্তে ভাষা প্রেমীদের উদ্যোগে শুরু হয়েছিল আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস। পরে ২০১১ সাল থেকে সরকারী ভাবে পালন হচ্ছে দিবসটি। তবে করোনার কারনে গেল দুই বছর বন্ধ ছিল শুণ্য রেখায় ২১ উদযাপন।।শহীদ মিনারে পুষ্প অর্পনে উপস্থিত ছিলেন, যশোর-১ আসনের সংসদ শেখ আফিল, বেনাপোল কাস্টমস কমিশনার আজিজুর রহমান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মীর আফিল রেজা, উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক মঞ্জু, বেনাপোল পৌর আ,লীগের সভাপতি এনামুল হক মুকুল, বেনাপোল ইমিগ্রেশন ওসি মোঃ রাজু, বন্দর থানার ওসি কামাল