ডামুড্যায় যথাযোগ্য মর্যাদায় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত

17

ইসলাম সোহেল,শরীয়তপুর প্রতিনিধিঃ বিনম্র শ্রদ্ধা ভালোবাসায় যথাযোগ্য মর্যাদায় শররয়তপুরের ডামুড্যায় অমর একুশে ফেব্রুয়ারি আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত হয়েছে।সোমবার উপজেলা আওয়ামীলীগের আয়োজনে ডামুড্যা উপজেলা শহীদ মিনারের পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে পালিত হয় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস৷ পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন ডামুড্যা উপজেলা আওয়ামীলীগ,পৌরসভা আওয়ামী লীগ, মহিলা আওয়ামীলীগ,উপজেলা আওয়ামী যুবলীগ,উপজেলা ছাত্রলীগ,আমার রাজ্জাক সেচ্ছাসেবী সংগঠন সহ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ৷
সামাজিক দুরুত্ব বজায় রেখে ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে সংক্ষিপ্ত আলোচনায় অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি হিসেবে ডামুড্যা উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হুমায়ুন কবির বাচ্ছু ছৈয়াল বলেন,
২১ ফেব্রুয়ারির মহান শহীদদের রক্ত ও ত্যাগের বিনিময়ে বাংলাভাষা রাষ্ট্রভাষা ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষার মর্যাদা লাভ করেছে। ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি বাংলাভাষাকে রাষ্ট্রভাষা হিসেবে প্রতিষ্ঠার জন্য যারা শহীদ হয়েছেন জাতি তাদের চিরদিন শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করবে। আমি ভাষা আন্দোলনের মহান শহীদদের শ্রদ্ধার সাথে স্মরণ করছি এবং তাদের মাগফিরাতের জন্য মহান আল্লাহর দরবারে দোয়া করছি।তিনি বলেন,দেশের সর্বস্তরে যথাযোগ্য মর্যাদায় বাংলাভাষাকে প্রতিষ্ঠা করতে হবে ৷ তা হলেই ভাষা আন্দোলনের শহীদদের স্বপ্ন স্বার্থক হবে।
ডামুড্যা উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের ত্রান ও সমাজকল্যান বিষয়ক সম্পাদক আব্দুর রশিদ গোলন্দাজ বলেন ,মহান ভাষা আন্দোলন বাঙালির জাতীয় ইতিহাসে এক অবিস্মরণীয় ঘটনা। আমি সশ্রদ্ধচিত্তে স্মরণ করি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে; যিনি ১৯৪৮ সালে মাতৃভাষার দাবিতে গঠিত সর্বদলীয় রাষ্ট্রভাষা সংগ্রাম পরিষদের নেতৃত্ব দেন এবং কারাবরণ করেন।
স্মরণ করি সকল ভাষা সংগ্রামীকে, যাদের দূরদৃষ্টি, অসীম ত্যাগ, সাহসিকতা, সাংগঠনিক দক্ষতা ও তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্ত গ্রহণের ফলে ১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি ভাষা আন্দোলন চূড়ান্ত পরিণতি লাভ করে। বাঙালি পায় মাতৃভাষার অধিকার।এ সময় উপস্থিত ছিলেন, ডামুড্যা উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি চৌধুরী জাহাঙ্গীর আলম,সহসভাপতি ইনু বেপারী,যুগ্ন সাধারন সম্পাদক মোঃ আলমগীর হোসেন মোল্যা, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক ইছাহাক মাদবর,ডামুড্যা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও পূর্ব ডামুড্যা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মাসুদ পারভেজ লিটন হাওলাদার, কনেশ্বর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আনিছুর রহমান বাচ্ছু মাদবর, দপ্তর সম্পাদক দেলোয়ার সরদার, শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক মুক্তার হোসেন,ইসলামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবুল হোসেন মোল্যা,শিধলকুড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান বাবুল শেখ, ধানকাটি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান গোলাম মাওলা রতন,ডামুড্যা উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি ফেরদৌস ওয়াহিদ, সাধারন সম্পাদক শফিকুল ইসলাম শামীম,সেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতি কামাল হোসেন হাওলাদার, পৌরসভা আওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগ সাধারণ সম্পাদক বাদল গোলদার, ডামুড্যা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি আমার রাজ্জাক সেচ্ছাসেবী সংগঠন এর সমন্বয়কারী মেহেদী হাসান রুবেল মাদবর, সাবেক সাধারণ সম্পাদক কামরুল হাসান মন্টি মাঝি, ডামুড্যা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান হোসেন, সাধারন সম্পাদক মাহাবুব আলম, ডামুড্যা শ্রমিক লীগের সভাপতি আবুল কালাম চৌকিদার, সাধারণ সম্পাদক মজিবর সরদার , সরকারি আব্দুর রাজ্জাক কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান হোসেন সবুজ, সাধারণ সম্পাদক সানোয়ার হোসেন মিঠু সহ আওয়ামীলীগ,যুবলীগ ও অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ ৷