কালীগঞ্জে পুলিশি জালে এক নারী সহ আটক ৩

48

আব্দুর রহিম, সাতক্ষীরা জেলা প্রতিনিধি:

নাম্বার বিহীন একটি দায়াং ৮০ লাল রঙের মোটরসাইকেলের সিটের নিচে বিশেষ কায়দায় লুকিয়ে মাদক বহনের সময় ওত পেতে থাকা বেরসিক পুলিশের অভিযানে ৪৩বোতল ভারতীয় ফেন্সিডিলসহ ১ নারী সহ ৩জন মাদক কারবারি কে আটক করেছে পুলিশ।
গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাতক্ষীরার কালীগঞ্জ থানার উপ সহকারী পরিদর্শক জিল্লুর রহমান শুক্রবার( ১৮ ফেব্রুয়ারি) রাত পৌনে ১০টার সময় নলতা ইউনিয়নের খান জিয়া সীমান্ত থেকে প্রথমে মোটর সাইকেলে লুকায়িত অবস্থায় ৪৩ বোতল ফেনসিডিলসহ জয়নুদ্দিন চৌধুরীকে আটক করা হয়। শনিবার সকালে থানায় মামলা দায়েরের পর বাকি দুই মাদক কারবারি কে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। আটককৃত মাদক কারবারিরা হল খুলনা জেলার খালিশপুর থানার দক্ষিণ কাশিপুর গ্রামের আশরাফ চৌধুরীর পুত্র জয়নুদ্দিন উদ্দীন চৌধুরী অপর দুজন কালীগঞ্জ থানার সে হারা গ্রামের রহিম গাজীর পুত্র বহুল আলোচিত ৫মামলার আসামি মাদক সম্রাট সিদ্দিক গাজী (৫০) এবং তার স্ত্রী মমতাজ বেগম( ৪৫)। উক্ত ঘটনায় থানার উপ সহকারী পরিদর্শক জিল্লুর রহমান বাদী হয়ে শনিবার( ১৯ ফেব্রুয়ারি) সকালে থানায় মাদক আইনে একটি মামলা দায়ের করেছে। থানায় মামলা দায়েরের পর আটককৃত মাদক কারবারি জয়নুদ্দিন উদ্দীন চৌধুরীর স্বীকারোক্তি এর ভিত্তিতে সদ্য যোগদানকৃত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কালিগঞ্জ সার্কেলের আমিনুর রহমান এবং থানার অফিসার্স ইনচার্জ গোলাম মোস্তফার নেতৃত্বে উপ পরিদর্শক হাসানুর রহমান, মাসুম, উপ সহকারী পরিদর্শক জিল্লুর রহমান সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে সকালে অভিযান চালিয়ে মাদক কারবারি সিদ্দিক গাজী ও তার স্ত্রী মমতাজকে তাদের বাড়ি থেকে আটক করা হয়। মাদক কারবারি সিদ্দিক বহু বছর ধরে ভারত হতে মাদক এনে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে পাচার করে আসছিল। মাদক কারবারীদের আটকের ঘটনা এর সত্যতা স্বীকার করে থানার অফিসার ইনচার্জ গোলাম মোস্তফা সাংবাদিকদের জানান মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত থাকবে। এ ব্যাপারে সাংবাদিকদের সর্বাত্তক সহযোগিতা কামনা করেন।