ভয়ংকর করোনাভাইরাস ও লকডাউন চলাকালে মাদক ব্যবসায়ীদের ব্যবসা রমরমা

নাজিম সরদার খুলনা সদর সংবাদদাতা:

খুলনা সহ রুপসা উপজেলায় বিভিন্ন জায়গায় অবাধে মাদক কেনাবেচা চলছে। এসব জায়গায় প্রতিদিন হেরোইন, ইয়াবা বড়ি, গাজা সহ বিভিন্ন মাদকদ্রব্য এসে ঢুকছে। এই সর্বনাশা ব্যবসা নিয়ন্ত্রণ করছে অপরাধজগতের গুটি কয়েক গডফাদার।এলাকাবাসীর অভিযোগ, এলাকার কিছু নেতার যোগসাজশে গডফাদাররা নিয়ন্ত্রণ করছে মাদক ব্যবসা। প্রতিদিন সকাল সন্ধ্যা থেকে মাদক ব্যবসায়ী ও মাদকাসক্তদের আনাগোনায় এসব জায়গা দিনরাত চলে কেনাবেচা। মাঝেমধ্যে মাদকদ্রব্য অধিদপ্তর ও পুলিশের টাস্কফোর্স RAB ছোটখাটো চালানসহ চুনোপুঁটিদের আটক করলেও গডফাদাররা সব সময় ধরাছোঁয়ার বাইরে রয়ে যায়।

বর্তমানে বড় বড় মাদক ব্যবসায়ীরা খুলনা সদর ছেড়ে গ্রাম অঞ্চলে বসবাস করছে, এসব মাদক ব্যবসায়ীরা আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর চাপ কমাতে গ্রামে আশ্রয় নিচ্ছে এবং এলাকার নেতাদের ম্যানেজ করে জায়গাজমি বাড়ি কিনে বসবাস করছে, এতে জনগণের ভিতর আলোচনা সৃষ্টি হয়েছে।

সরেজমিনে ঘুরে ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ভারত থেকে সড়কপথে খুলনা হয়ে মাদকদ্রব্য চলে আসে খুলনা সদর সহ রূপসা উপজেলায় এসে পৌঁছায়। আর বিপথগামী তরুণ ও কিছু স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী, উঠতি বয়সী যুবকেরাসহ এলাকার গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিরা এই মাদকদ্রব্যের নিয়মিত ক্রেতা।আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সূত্রে বলেন আমরা মাদক আসামিদের মাদকসহ কোর্টে সোপর্দ করার পর আইনের ফাঁকফোকর দিয়ে বেরিয়ে এসে আবার মাদক ব্যবসা শুরু করে এবং গডফাদাররা সাক্ষীদের ম্যানেজ করে ফেলে। ফলে মামলার আর কিছু হয় না।