অসহায় কৈকি রানীর পাশে মানিকগঞ্জ জেলা পুলিশ সুপার গোলাম আজাদ খান

0

আতিকুল ইসলামের স্টাফ রিপোর্টার:মানিকগঞ্জের সিংগাইরে জামশা ইউনিয়নের দক্ষিন জামশা গ্রামের কৈকি রানী মন্ডল নি:সন্তান বিধবা ও হতদরিদ্র বৃদ্ধা দীর্ঘদিন যাবৎ জরাজীর্ন ঘরে এক বেলা খেয়ে,না খেয়ে দিনপার করে আসছিল।

বিষয়টি গনমাধ্যমে প্রকাশ হলে সিংগাইর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা, সফিকুল ইসলাম মোল্যার নজরে আসলে তিনি তাৎক্ষিক জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ গোলাম আজাদ খান পিপিএম-বারকে অবগত করেন।

পরে গেল বৃহস্পতিবার (১৯ আগস্ট) বিকাল ৩ টা দিকে শফিকুল ইসলাম মোল্লা জেলা পুলিশ সুপারের নির্দেশে নিজস্ব অর্থায়নে নগদ ২ হাজার টাকা,১টি শাড়ীসহ নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্য সামগ্রী এস.আই জহিরুল হক এর মাধ্যমে কৈকি রানীর বাড়িতে পৌছে দেন ।

কৈকি রানী নিজের অজান্তেই হঠাৎ করে এমন উপহার পেয়ে চোখের পানি ফেলে দেন । ও মন খুলে দোয়া করেন। এ বিষয়ে জানতে চাইলে সিংগার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিকুল ইসলাম মোল্লা, বলেন নিঃস্বার্থ একজন হতদরিদ্র ব্যক্তির পাশে থাকতে পেরে নিজের কাছে অনেক ভালো লাগছে ।

এরপর বিষয়টি পুরোপুরি অবগত হন মানিকগঞ্জ জেলার পুলিশ সুপার গোলাম আজাদ খান, তিনি গত শনিবার (২১ আগস্ট) নিজেই ছুটে আসেন কৈকি রানীর বাড়িতে।সরেজমিনে দেখে তিনি কৈকি রানীকে নগদ অর্থ খাবার দেয়ার পাশাপাশি আশ্বাস দেন তাহার বাড়িটি পূর্ননির্মাণ করে দেওয়ার । এছাড়াও কৈকি রানী যতদিন বেঁচে আছেন তাহার খাবার-দাবার ও ভরণপোষণের দায়িত্ব নিলেন স্থানীয় চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান মিঠু ।এ সময় উপস্থিত ছিলেন, সহকারী পুলিশ সুপার সার্কেল রেজাউল হক, সিংগাইর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সফিকুল ইসলাম মোল্লা, এস,আই মাহফুজ, এস,আই জহিরুল, এস,আই বকতিয়ার সহ সিংগার থানার পুলিশ কর্মকর্তা

নিউজটি শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •