পরিবার নিয়ে ২ বছর ধরে শ্রেণিকক্ষে শিক্ষককের বসবাস

21

পিরোজপুর জেলা প্রতিনিধি:
পিরোজপুরের ইন্দুরকানী উপজেলার একটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের শ্রেণি কক্ষ (ক্লাসরুম) স্ত্রী-সন্তান নিয়ে দুই বছর ধরে বসবাস করছেন এক শিক্ষক এতে ব্যাহত হচ্ছে শিক্ষার্থীদের পাঠদান। ঘটনাটি উপজেলার দক্ষিণ ইন্দুরকানী এস এস আদর্শ মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের।
ওই বিদ্যালয়ে গিয়ে দেখা যায়, বিদ্যালয়ের একটি শ্রেণি কক্ষ পেতেছেন ওই বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক রনজিৎ কুমার ডাকুয়া। একদিন-দু’দিন নয়, পুরো দুই বছর ধরে স্ত্রী ও সন্তানদের নিয়ে শ্রেণি কক্ষে বসবাস করে আসছেন তিনি। অথচ কাছেই তার বাড়ি আছে। বাড়ির কাছাকাছি বিদ্যালয় হওয়া সত্তে¡ও প্রধান শিক্ষক অসীম কুমার মজুমদারের সহযোগিতায় তিনি প্রভাব খাটিয়ে পরিবার নিয়ে শ্রেণি কক্ষ বসবাস করছেন। শ্রেণি কক্ষে বেঞ্চ সরিয়ে খাট পেতে নিজের মতো করে বসবাস করছেন। তার কক্ষ রয়েছে দু’টি খাট, ফ্রিজ, আলমারিসহ বিভিন্ন আসবাবপত্র।
বিষয়টি স্বীকার করে ওই বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক রনজিৎ কুমার ডাকুয়া বলেন, কমিটির সিদ্ধান্তেই আমি বিদ্যালয়ে পরিবার নিয়ে বসবাস করছি।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অসীম কুমার মজুমদার বলেন, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিয়েই তিনি বিদ্যালয়ে থাকছেন।
স্থানীয়রা ও শিক্ষার্থীদের অভিভাবকরা সাংবাদিকদের জানান, এটা কোনোভাবেই গ্রহণযোগ্য নয়। এতে বিদ্যালয়ে লেখাপড়ার পরিবেশ নষ্ট হয়।
স্থানীয় ইউপি সদস্য দীপংকর ঢালী সাংবাদিকদের জানান, বিদ্যালয়ের কাছেই সহকারী প্রধান শিক্ষক রনজিৎ কুমার ডাকুয়ার বাড়ি। কিন্তু তিনি প্রভাব খাটিয়ে বিদ্যালয়ের শ্রেণি কক্ষ স্ত্রী ও ছেলে-মেয়ে নিয়ে থাকছেন।
ওই বিদ্যালয় ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি মাহমুদুল হক দুলাল সাংবাদিকদের কাছে এ বিষয়ে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।
উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষ কর্মকর্তা মীর একেএম আবুল খায়ের জানান, আমি এ ব্যাপারে কিছুই জানি না। আমাকে কিছুই জানানো হয়নি।উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইএনও) লুৎফুন্নেছা খানম জানান, বিষয়টি আমার জানা ছিল না। আমার অফিস থেকে বিদ্যালয়ের শ্রেণি কক্ষ বসবাস করার কোনো অনুমতি দেওয়ার বিধান নেই। তদন্ত সাপেক্ষে এ বিষয়ে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

নিউজটি শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •