দশমিনায় ঝুঁকিপূর্ণ ব্রীজ নির্মানের সংবাদ প্রকাশের পর তদন্ত শুরু

17

মোঃ আরিফুর রহমান ( ঝন্টু ) দশমিনা প্রতিনিধি।

দশমিনায় ঝুঁকিপূর্ণ ব্রীজ নির্মানের সংবাদ প্রকাশের পর তদন্ত শুরু করেছে উপজেলা প্রশাসন। 

পটুয়াখালী দশমিনা উপজেলার শেষ প্রান্ত নদী বন্দর এলাকা ১ নং রনগোপালদী ইউনিয়নের ৩ নং ওয়ার্ডের জগত দাস নামক গ্রামে চলাভাঙ্গা নদীর উপর নির্মিত ঝুঁকিপূর্ণ আয়রণ ব্রীজটি নিয়ে ২০ নং রনগোপালদী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের স্কুল শিক্ষার্থীসহ স্থানীয়রা মানববন্ধন করেন। 

গত ( ৩ অক্টোবর ) রোজ রবিবার জাতীয় দৈনিক আজকের পত্রিকা , ও দৈনিক আলোকিত বরিশাল এবং বিভিন্ন অনলাইন পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশ হলে বিষয়টা স্থানীয় সংসদ সদস্য ও উপজেলা প্রশাসনের নজরে আসে।পরে ঘটনাটি আমলে নিয়ে ঘটনাস্থলে আয়রণ ব্রীজটি পরিদর্শন করেন উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আবদুল আজীজ, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আল-আমিন, এবং উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ মকবুল হোসেন।  

এব্যাপারে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মোঃ আবদুল আজীজ বলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসার এবং আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখে দেখেছি ।  ব্রীজটি উপযোগী করার লক্ষে এডিপির অর্থায়নে বরাদ্দ নিয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ব্রীজটির কাজ দ্রুতই শুরু করা হবে। 

এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ আল-আমিন বলেন, আয়রণ ব্রীজটি দিয়ে চলাচল করা খুবই ঝুঁকিপূর্ণ তাঁই সংস্করের দ্রুত ব্যবস্থা চলছে।

উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ মকবুল হোসেন বলেন, রনগোপালদীর ঝুঁকিপূর্ণ ব্রীজটির জন্য কাগজপত্র তৈরি করে উপর মহলে পাঠানো হয়েছে । 

নিউজটি শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •