জবির কেন্দ্রীয় খেলার মাঠ রক্ষার দাবিতে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল

15

মোহাম্মদ নাছিফুর রহমান,জবি প্রতিনিধিঃজগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের একমাত্র কেন্দ্রীয় খেলার মাঠ (ধূপখোলা) রক্ষার দাবিতে ৩০ই সেপ্টেম্বর ২০২১ তারিখে (বৃহস্পতিবার) সকাল ১০টায় ক্যাম্পাসের শহীদ মিনারের সামনে থেকে মানববন্ধন করেছেন সাধারণ শিক্ষার্থীরা। এরপর তারা একটি বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে শহীদ মিনার থেকে শুরু হয়ে ক্যাম্পাসের কলা অনুষদ, বিজ্ঞান অনুষদ হয়ে পুরো ক্যাম্পাস প্রদিক্ষন করার পরে মিছিলটি নিয়ে জবির প্রধান ফটকের সামনে রাস্তা অবরোধ করে কিছু সময় অবস্থান করে।শিক্ষার্থীরা অভিযোগ করেন পুরান ঢাকাতে ক্যাম্পাস থাকার কারণে মনে হচ্ছে এক এক করে সবগুলো স্থাপনা দখল করে নিচ্ছে ভূমিদস্যুরা। আমরা সাধারণ শিক্ষার্থীরা মনে হয় আজ অসহায় হয়ে পড়েছি। তবে আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ মাঠ রক্ষার দাবিতে। আমাদের এই আন্দোলন সীমাবদ্ধ থাকবে না, আরও অধিকতর হবে আগামীতে। সমাজতন্ত্র ছাত্র ফন্টের সহ-সভাপতি সুমাইয়া সোমা বলেন, আমাদের হলগুলো সব হাজী সেলিমের মতো দখলদাররা দখল করে নিয়েছে। এমনিভাবে আমাদের খেলার মাঠও তারা দখল করে নিচ্ছে। জগন্নাথ ইতিহাসের যা কিছু আছে সবকিছু দখল করে নিচ্ছে মনে হয়। ডিএনসিসি যদি এই মাঠের দিকে হাত দেয় তাহলে আমরা তা গুড়ে দিবো শিক্ষার্থীরা মিলে। প্রশাসন যদি এই দাবি না মানে তাহলে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় হল আন্দোলনের মতো আরেকটা আন্দোলন দেখবে। সাধারণ শিক্ষার্থীদের সাথে নিয়ে আমরাও কর্মসূচি দিবো অচিরেই। ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের ১১তম ব্যাচের শিক্ষার্থী কামাল হোসেন বলেন, আমরা আমাদের মাঠ না পেলে কঠোর আন্দোলন করবো। আমরা পরবর্তী সময়ে আমাদের যা করনীয় তা করবো। একটা মাঠ একটা হাসপাসতালে সমান। প্রশাসন নিশ্চুপ ভূমিকা পালন করলে আমরা শিক্ষার্থীরা দাঁতভাঙা জবাব দিতে প্রস্তুত।বোটানি বিভাগের ১৩তম ব্যাচের শিক্ষার্থী মোহাম্মদ রাকিব বলেন, এই ধূপখোলা মাঠে খেলে অনেক শিক্ষার্থী এখন জাতীয় পর্যায়ের খেলোয়াড় হয়েছেন। সাবেক শিক্ষার্থীদের প্রানের স্পন্দন এই মাঠ। আমরা প্রয়েজনে সব বাঁধা ঠেলে আমাদের সম্পদকে রক্ষা করবো। মাঠ আন্দোলনের আহ্বায়ক আসাদুজ্জামান বলেন, আমাদের এই আন্দোলনের সাথে কোনো ধরনের কুচক্রী মহল হাত দিলে তা আমরা প্রতিহত করবো। শান্তিপূর্ন বিক্ষোভ মিছিলে আজ পুলিশের হস্তক্ষেপে বন্ধ হয়েছে কিন্তু আগামীতে বন্ধ হবে না। আমরা কঠোরভাবে আন্দোলন চালিয়ে যাবো এসব দখলদারদের বিরুদ্ধে। আমরা আগামী রবিবারে ক্যাম্পাস থেকে মানববন্ধন করে মাঠে যাবো ইনশাআল্লাহ। জবি প্রক্টর মোস্তফা কামাল বলেন, আমরা সবসময় শিক্ষার্থীদের দাবির সাথে একমত পোষণ করি। মাঠকে ফিরিয়ে আনার জন্য আমরাও প্রশাসনকে অনুরোধ করেছি। তারা আমাদের এখনো কিছু জানায়নি।

নিউজটি শেয়ার করুন...
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •