ঢাকা, মঙ্গলবার, ৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

বাগেরহাট ৩ মোংলা-রামপাল দলীয় মনোনয়ন ফরম নিলেন ‘হাবিবুন নাহার’

বাগেরহাট-৩ (রামপাল-মোংলা উপজেলা) থেকে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেছেন খুলনা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আ: খালেক এর পত্মী বেগম হাবিবুন নাহার। এ আসন থেকে বেগম হাবিবুন নাহার তিন বার নৌকার মনোনয়ন নিয়ে বিপুল ভোটে বিজয়ী হয়েছেন। পরে তিনি পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন।

রবিবার (১৯ নভেম্বর) সকালে বঙ্গবন্ধু এভিনিউস্থ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দলের দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া’র হাত থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রণালয়ের উপমন্ত্রীর ব্যক্তিগত সহকারী মোঃ রেদওয়ান মারুফ।

এসময় কেন্দ্রীয় আ’লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস, এম, কামাল হোসেন, মোংলা উপজেলা আ’লীগের তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক সাখাওয়াত হোসেন মিলন, যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক দিলীপ কুমার মন্ডল, ধানমণ্ডি থানা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি সুজাউদ্দিন (তুহিন), ঢাকা দক্ষিনের স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাবেক সদস্য পিন্টু মজুমদার সহ আ’লীগ ও ছাত্রলীগের বিভিন্ন নের্তৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে গত শনিবার (১৮ নভেম্বর) সকালে বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু হয়। মনোনয়নপত্র বিক্রি কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রথম দলীয় মনোনয়ন ফরমটি সংগ্রহ করেন।

পরে গোপালগঞ্জ-৩ আসনে নির্বাচনে অংশ নিতে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার পক্ষে প্রথমে দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন দলের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য কাজী আকরাম উদ্দিন আহমেদ। এরপর মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

উল্লেখ্য, হাবিবুন নাহার ১৯৫৪ সালের ১৮ সেপ্টেম্বর জন্মগ্রহন করেন। পৈতৃক বাড়ি বাগেরহাট জেলায়।তিনি একজন বাংলাদেশী নারী রাজনীতিবিদ ও সংসদ সদস্য। তিনি ২০০৮ ও ২০১৮ সালের উপ নির্বাচনে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের প্রার্থী হিসেবে বাগেরহাট-৩ আসন থেকে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। একাদশ সংসদ নির্বাচনে পরিবেশ মন্ত্রনালয়ে তিনি পরিবেশ উপমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পান।

হাবিবুন নাহার ২০০৮ সালে বাগেরহাট-৩ থেকে প্রথমবারের মত সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। ২০১৪ সালের নির্বাচনে এ আসনে তার স্বামী তালুকদার আবদুল খালেক বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়। খুলনা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে তালুকদার আবদুল খালেক পদত্যাগ করে। জুন ২০১৮ সালে এ আসনে উপ-নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। উপনির্বাচনে আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী হাবিবুন নাহার বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন।

শেয়ার করুনঃ

স্বত্ব © ২০২৩ সকালের খবর ২৪