হবিগঞ্জে জিংক আলু চাষ, প্রতি কেজির দাম ৫০ টাকা

মোঃ জয় সিকদার (কৃষি প্রতিনিধি):

জিংক আলু একটি বিদেশী আলুর জাত। এটি চাষ হয় সুদুর হল্যান্ডে। কিন্তু বর্তমানে দেশেই বাণিজ্যিকভাবে চাষ হচ্ছে জিংক আলু। এই জিংক আলু চাষে ব্যাপক সফলতাও পেয়েছেন হবিগঞ্জ জেলার গোপীনাথপুরের চাষি বদু মিয়া। চলতি বছর প্রতি কেজি আলু বিক্রি করেছেন ৪০-৫০ টাকা দরে। এতে করে তার দেখাদেখি এই জাতের আলু চাষে উদ্যোগী হচ্ছেন এলাকার অনেক চাষি।

কৃষক বদু মিয়ার সাথে যোগাযোগ করা হলে জানা যায়, বিএডিসির কর্মকর্তা রেজাউল করিমের কাছ থেকে তিনি জিংক আলুর বীজ সংগ্রহ করেন। চলতি বছর বিঘা প্রতি উৎপাদন হয়েছে চার টন। ৪০-৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করেছেন।

তিনি আরও জানান, এই জাতের আলু চাষে বিষ প্রয়োগ করেন না। জৈব সার ও জৈব বালাইনাশক ওষুধ প্রয়োগ করে ফসল উৎপাদন করেন। এতে ফলনও পেয়েছেন অনেক বেশী। এছাড়াও পুষ্টিমান বিবেচনায় জিংক আলুর চাহিদা অনেক বেশি। যারফলে সহজেই লাভবান হওয়া যায় বলেও তিনি জানান।

এ প্রসঙ্গে বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটের মুখ্য বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. বিমল কুণ্ড সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এটি জিংক এবং আয়রন সমৃদ্ধ হওয়ায় স্বাস্থ্যের জন্য উপকারী। বিদেশিরা এটিকে হাল্কা সিদ্ধ করে সালাদ করে খায়। বর্তমানে আমাদের দেশে এটি ততটা জনপ্রিয় না হলেও একসময় এটি জনপ্রিয় হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।