ঢাকা, মঙ্গলবার, ৫ই মার্চ, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

এবার ডিবি কার্যালয়ে মুশতাক-তিশা

রাজধানীর মতিঝিল আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের গভর্নিং বডির সদস্য খন্দকার মুশতাক আহমেদ একই কলেজের শিক্ষার্থী সিনথিয়া ইসলাম তিশাকে বিয়ে করে আলোচনায় আসেন। তারা ভালোবেসে একে অপরকে বিয়ে করেন তারা।

সম্প্রতি এই অসম ভালোবাসার কথা নিয়ে দুটি বই লিখেছেন। এবারের বইমেলায় বইদুটি প্রকাশিত হয়েছে। নিজেদের বইয়ের প্রচারে বইমেলায় গিয়ে দর্শনার্থীদের তোপে মুখে পড়েন তিশা ও মোস্তাক।

গত সোমবার বিকেলে বই মেলায় আসা কিছু দর্শনার্থী ‘ভুয়া ভুয়া’ স্লোগান দিতে শুরু করেন। এরপর নিরাপত্তাকর্মীদের সহায়তা নিয়ে মেলা থেকে বের হয়ে আসেন খন্দকার মুশতাক ও তিশা।

এসময় সাংবাদিকদের উদ্দেশে খন্দকার মুশতাক বলেন, ‘বইমেলা একটি পবিত্র জায়গা। এখানে একজন লেখক-পাঠক হিসেবে আমার আসার অধিকার রয়েছে। যারা এসব করেছে, তারা পাঠক না। তারা মেলায় এসেছে এমন কাণ্ড ঘটানোর জন্য। আমি সাইবার ক্রাইমে অভিযোগ দিয়েছি।’

তিশা বলেন, ‘সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একজন মানুষ বলছে, আমাদেরকে মেরে ফেলতে চায়। আমি আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে বলবো, আমার নিরাপত্তা কোথায়? একজন সাধারণ নাগরিক হিসেবে আমি আমার নিরাপত্তা চাই।’

নিরাপত্তা চেয়ে ডিএমপির শাহবাগ থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন খন্দকার মুশতাক ও সিনথিয়া ইসলাম তিশা। শনিবার (১০ ফেব্রুয়ারি) রাত ৯টায় খন্দকার মুশতাক আহমেদ শাহবাগ থানায় এ জিডি করেন।

এই জিডির প্রেক্ষিতে প্রতিকার চাইতে এবার ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কার্যালয়ে এলেন মোস্তাক ও তিশা।

ডিবির একটি দায়িত্বশীল সূত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। জানা গেছে, বই মেলায় সম্প্রতি ঘটে যাওয়া ঘটনার বিষয় নিয়ে ডিএমপির অতিরিক্ত কমিশনার (গোয়েন্দা) মোহাম্মদ হারুন অর রশীদের সঙ্গে দেখা করতে এসেছেন। বিকেল ৬টার কিছু আগে তারা রাজধানীর মিন্টো রোডে ডিবি কার্যালয়ে প্রবেশ করেন।

ডিআই/এসকে

শেয়ার করুনঃ

স্বত্ব © ২০২৩ সকালের খবর ২৪